ইংল্যান্ড এর সিরিজ জয়

0
208

শতকণ্ঠ ডেস্ক
করোনর পর প্রথম টেস্ট হারার পর ঘুরে দারিয়েছে ইংল্যান্ড। ২-১ ব্যাবধানে সিরিজ জয়। একদিন বৃষ্টি অপেক্ষার পর সকাল সকালই ৫০০ তম উইকেট তুলে নেয় স্টুয়ার্ট ব্রড। ক্রেইগ ব্রাফেটকে এলবিডাব্লু করেন। ব্রডকে প্রাপ্তির আনন্দে ভাসতে দিয়ে এবার বাকি কাজটা বুঝে নিলেন ক্রিস ওকস। এই অলরাউন্ডারের এক স্পেলেই ধস নেমে গেল উইন্ডিজ ইনিংসে। শেষ পর্যন্ত দ্বিতীয় ইনিংসে ১২৯ রানে গুটিয়ে ২৬৯ রানে হেরে গেল সফরকারীরা।
পরশু উইন্ডিজের দুই উইকেট তুলে নিয়েছিলেন ব্রড। তাতে ৪৯৯তে ঠেকেছিল তাঁর টেস্ট উইকেট সংখ্যা। আজ ১০ রানে দিন শুরু করা ওয়েস্ট ইন্ডিজ বহুক্ষণ তাঁকে আটকে রেখেছিল। কিন্তু দিনের অষ্টম ওভারে আর পারলেন না ব্রাফেট। ওভারের তৃতীয় বলটা একটু নিচু হয়ে আঘাত হানল পায়ে। আর সঙ্গে সঙ্গে মাইলফলক ছোঁয়ার আনন্দে ভাসলেন ব্রড। ওয়েস্ট ইন্ডিজের রান তখন ৪৫। সফরকারীদের রানের খাতায় আরও ৮৪ যোগ হওয়ার পর আবারও ব্রডের আঘাত। এবার জারমেইন ব্ল্যাকউডকে উইকেটের পেছনে ক্যাচ বানালেন ব্রড। থামল ব্ল্যাকউডের প্রয়োজনের তুলনায় অপ্রতুল প্রতিরোধ (২৩ রান)। দিন কাটানোর চেষ্টা মাত্র ১২৯ রানে শেষ হলো উইন্ডিজের।
শুরু আর শেষটা ব্রডের। এই টেস্টে ৬৭ রানে ১০ উইকেট নিয়ে আর ৪৫ বলে ৬২ রান ম্যাচ সেরাও ব্রড। কিন্তু মাঝের গল্পটা ওকসের। ব্রডের ৫০০ উইকেট প্রাপ্তির পর একটু গুছিয়ে নিয়েছিল সফরকারীরা। ২৬ রানের জুটি গড়ার পর শাই হোপের কী মনে হলো কে জানে, হুক করতে গেলেন আচমকা। কিন্তু বলটা ব্রডের তালুতেই আটকা পড়ল। পরের ওভারেই ব্রুকসকেও তুলে নিলেন ওকস। বিপদ বাড়িয়ে রোস্টন চেজও রান আউট হয়ে ফিরে গেলেন।
ওকসের উইকেটের নেশা তখনো থামেনি। একে একে আরও তুলে নিলেন জেসন হোল্ডার, ডাউরিচ ও কর্নওয়ালকে। ৫০ রানে ৫ উইকেট পাওয়া ওকস বিশ্রামে যাওয়ার পর ম্যাচটা শেষ করে এলেন ব্রড। প্রথম টেস্টের দল থেকে বাদ পড়ার সিদ্ধান্ত নিয়ে প্রশ্ন তুলেছিলেন। সে টেস্ট ইংল্যান্ড হেরেও গিয়েছিল। পরে দলে ফিরে টানা দুই জয়ে রেখেছেন বড় অবদান। টেস্টে ৫০০ উইকেটের মাইলফলক ছুঁয়ে বসেছেন কিংবদন্তিদের পাশে। এক ম্যাচ কম খেললেও তাই শেষ পর্যন্ত এটা ব্রডেরই সিরিজ।
সংক্ষিপ্ত স্কোর
ইংল্যান্ড প্রথম ইনিংস: ৩৬৯/১০
ওয়েস্ট ইন্ডিজ প্রথম ইনিংস: ১৯৭/১০
ইংল্যান্ড দ্বিতীয় ইনিংস: ৫৮ ওভারে ২২৬/২ (ডিক্লেয়ার) (রোরি বার্ন ৯০, হোল্ডার ১/২৪)
ওয়েস্ট ইন্ডিজ দ্বিতীয় ইনিংস: ৩৭.১ ওভারে ১২৯/১০ (লক্ষ্য ৩১২) (ব্রোকস ২২, হোপ ৩১, স্টুয়ার্ট ব্রড ৪/৩৬, ক্রিস ওকস ৫/৫০)
ফল: ২৬৯ রানে ইংল্যান্ড জয়ী।
ম্যান অব দ্য ম্যাচ: বেন স্টুয়ার্ট ব্রড ।
ম্যান অব দ্য সিরিজ: বেন স্টুয়ার্ট ব্রড ।
সিরিজ: তিন ম্যাচ সিরিজ ২-১ ব্যবধানে জয় ইংল্যান্ড।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here