ঝালকাঠিতে সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখেই কোরবানির হাট পরিচালনা করা হবে —————-জেলা প্রশাসক জোহর আলী

0
196
জেলা প্রশাসক মো. জোহর আলী।

স্টাফ রিপোর্টার
করোনা মোকাবিলায় সরকার ও স্বাস্থ্য বিভাগের নির্দেশনা মাঠপর্যায়ে বাস্তবায়ন করে যাচ্ছে মাঠপ্রশাসনের গুরুত্বপূর্ণ প্রশাসনিক প্রতিষ্ঠান ‘জেলা প্রশাসন’। ঝালকাঠি জেলায় যার নেতৃত্বে রয়েছেন জেলা প্রশাসক মোঃ জোহর আলী। করোনা সংকটের শুরু থেকেই তৎপর হয়ে তিনি ত্রাণ সহায়তা থেকে শুরু করে সার্বিক কার্যক্রমে স্থানীয় জনপ্রতিনিধিসহ সর্বসাধারণের সঙ্গে সমন্বয়ের মাধ্যমে করোনা মোকাবিলায় কাজ করে যাচ্ছেন। ঈদুল আজহা আসন্ন। ঈদকে কেন্দ্র করে পশুর হাট, হাটকে কেন্দ্র করে জালটাকা ও আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির নিয়ন্ত্রণসহ স্বাস্থ্যবিধি মেনে, সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে হাট পরিচালনার লক্ষে দিনরাত কাজ করে যাচ্ছেন তিনি।
সেসব কার্যক্রম কীভাবে পরিচালনা করছেন, সে বিষয়ে এক সাক্ষাতকারে জেলা প্রশাসক জানান, মহামারি করোনা সংক্রমণ থেকে রক্ষা পেতে স্বাস্থ্যবিধি ও সামাজিক নিরাপদ দূরত্ব বজায় রেখে কুরবানির পশুরহাট বসানোর সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। করোনা সংক্রমণ রোধে নানা পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে। যাতে কুরবানিতে ঘরমুখো মানুষের কারণে এলাকায় করোনা আক্রান্ত সংখ্যা না বাড়ে। সেদিকে গুরুত্ব দেয়া হচ্ছে।
জেলা প্রশাসক জোহর আলী বলেন, করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাব ঠেকাতে প্রথম যেটা দরকার সেটা হচ্ছে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখা। আমরা সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার জন্য সমগ্র জেলাতে সচেতনতামূলক প্রচার চালিয়েছি, হাট-বাজারগুলোকে উন্মুক্তস্থানে দূরত্ব বজায় রেখে বসার ব্যবস্থা করেছি। বিশেষ করে যারা আক্রান্ত হয়েছেন তাদের কন্টাক্টিং সোর্স যারা ছিলেন তাদের খুঁজে বের করে হোম কোয়ারেন্টাইনের ব্যবস্থা করেছি। সেটাই এখন আমাদের বড় সফলতা।
তিনি আরও বলেন, শহরের মধ্যে, আবাসিক এলাকায় এবং সড়কের উপরে কুরবানির পশুরহাট বসানোর কোনো অনুমোদন দেয়া হবে না। শহরতলীর নির্জন ও পরিত্যক্ত খোলামাঠে এ হাট বসানোর অনুমতি দেয়া নিয়ে আমাদের আলোচনা শেষে ঝালকাঠি শহরতলীর বিকনা এলাকায় শহীদ ক্যাপ্টেন বীরশ্রেষ্ঠ মহিউদ্দিন জাহাঙ্গীর স্টেডিয়ামে অস্থায়ীভাবে পশুরহাট বসানোর অনুমতি দেয়া হয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here