ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলায়, নলছিটি পৌরসভার সাবেক কাউন্সিলর গ্রেফতার

0
217
মু. মনিরুজ্জামান মুনির।

নলছিটি (ঝালকাঠি) প্রতিনিধি
ঝালকাঠির নলছিটিতে ফেসবুক লাইভে জনপ্রতিনিধিদের বিরুদ্ধে অশ্লীল বক্তব্য (নরপশু ও বিনাভোটে নির্বাচিত) ও রাষ্ট্র বিরোধী কর্মকান্ডের অভিযোগে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলায় নলছিটি পৌরসভার সাবেক কাউন্সিলর ও বিতর্কিত সাংবাদিক মু. মনিরুজ্জামান মুনিরকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। শুক্রবার (২৯ মে) রাতে শহরের নান্দিকাঠি বাইপাস সড়কের বাসা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। উপজেলার রানাপাশা ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মাসুদুর রহমান সালাম বাদী হয়ে শুক্রবার বিকেলে মুনিরের নামে নলছিটি থানায় মামলাটি দায়ের করেন। শনিবার (৩০ মে) তাকে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।
পুলিশ জানায়, নলছিটি পৌরসভার সাবেক কাউন্সিলর ও কথিত সাংবাদিক (যুগান্তরের উপজেলা প্রতিনিধি থেকে বহিস্কৃত) মনিরুজ্জামান মুনির ফেসবুকে লাইভ করে বিভিন্ন শ্রেণির মানুষের সম্মানহানী করে যাচ্ছেন। গত ২৪ মে রানাপাশা ইউনিয়নের একটি গ্রামে দাঁড়িয়ে মুনির তার ছেলে মাসুদুজ্জামান মিতুলের আইডি দিয়ে ফেসবুকে স্থানীয় চেয়ারম্যান মাসুদুর রহমান সালামের নামে অশ্লীল মন্তব্য করেন। এসময় তিনি জনপ্রতিনিধিদের নরপশু বলে গালাগাল করেন। বিনাভোটে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়ে ক্ষমতার অপব্যাবহারসহ প্রশাসনকেও কটাক্ষ করে বক্তব্য দেন। মুহূর্তের মধ্যে ভিডিওটি ভাইরাল হয়ে যায়। এ ঘটনায় ইউপি চেয়ারম্যান মাসুদুর রহমান সালাম বাদী হয়ে মামলা দায়ের করলে পুলিশ বিতর্কিত এ সাংবাদিককে গ্রেফতার করে।
মামলার বাদী ইউপি চেয়ারম্যান মাসুদুর রহমান সালাম বলেন, মুনির আগে দেশের একটি প্রথম শ্রেণির প্রত্রিকার (দৈনিক যুগান্তর) নলছিটি উপজেলা প্রতিনিধি ছিল। তার বিতর্কিত কর্মকান্ডের কারণে কর্তৃপক্ষ ২০০৮ সালে তাকে বহিষ্কার করে। এখন সে ফেসবুকে সংবাদ লিখে মানুষকে হয়রানি করছে। মিথ্যা তথ্য লিখে এবং লাইভে এসে সম্মানহানিকর বক্তব্য দিচ্ছে। তার যন্ত্রণায় উপজেলার সব শ্রেণির মানুষ অতিষ্ঠ। ফেসবুক কোন সংবাদ মাধ্যম নয়, এটা ব্যবহার করে মুনির চাঁদাবাজী করছে। এ ঘটনার বিচার হওয়া প্রয়োজন বলে আমি মনে করি।
নলছিটি থানার ওসি শাখাওয়াত হোসেন জানান, মুনিরের বিরুদ্ধে মানুষকে হয়রানি, ফেসবুকে লাইভে মিথ্যাচার করে চাঁদাদাবি ও রাষ্ট্র বিরোধী কর্মকান্ডের অভিযোগ রয়েছে। মামলা দায়েরের পরপরই তাকে গ্রেফতার করা হয়েছে। তার বিরুদ্ধে নলছিটি ও বরিশাল সদর থানায় একাধিক মামলা রয়েছে। আগেও সে কয়েকবার গ্রেফতার হয়ে জেলহাজতে ছিলেন। শনিবার তাকে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here