1. admin@dainikshatakantha.com : dainikshatakantha :
শনিবার, ২৪ জুলাই ২০২১, ১০:৫৪ অপরাহ্ন

নলছিটিতে গৃহবধূকে ধর্ষণ, যুবক গ্রেপ্তার, গৃহবধূকে মারধর করে বাবার বাড়িতে পাঠিয়ে দিয়েছে শ্বশুর বাড়ির লোকজন

  • প্রকাশিত : সোমবার, ১৯ অক্টোবর, ২০২০
  • ১৪৯ বার পড়া হয়েছে
গৃহবধূকে মারধর করে বাবার বাড়িতে পাঠিয়েছে
গৃহবধূকে মারধর করে বাবার বাড়িতে পাঠিয়েছে

কে এম সবুজ
ঝালকাঠির নলছিটিতে দুই সন্তানের জননী এক গৃহবধূকে (২৫) ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে শহিদুল হাসান হিরণ (৩০) নামে এক যুবকের বিরুদ্ধে। এ ঘটনায় স্থানীয়রা ওই যুবককে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেছে। শনিবার রাতে উপজেলার কাঠিপাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। রবিবার রাতে ওই যুবকের বিরুদ্ধে নলছিটি থানায় মামলা করেন নির্যাতিত গৃহবধূ।
এদিকে ধর্ষণের শিকার ওই গৃহবধূকে অভিযুক্ত যুবকের সঙ্গে বসিয়ে অশ্লীল ভিডিও ধারণ ও ছবি তুলে ফেসবুকে ছড়িয়ে দেওয়া হয়েছে। এমনকি শ্বশুর বাড়ির লোকজন গৃহবধূকে মারধর করে বাবার বাড়িতে পাঠিয়ে দেয়।
পুলিশ সূত্র ও নির্যাতিতর পরিবার জানায়, শনিবার রাতে কাঠিপাড়া গ্রামে ওই গৃহবধূর বাড়ির পেছনের গাছ বেয়ে ছাদ থেকে ঘরের ভেতরে প্রবেশ করে হিরণ। সে গৃহবধূর কক্ষে ঢুকে তাকে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে। এসময় তাঁর চিৎকার শুনে পরিবার ও আশেপাশের লোকজন এসে ধর্ষণকারী যুবককে আটক করে। তার হাত-পা বেঁধে মারধর করে স্থানীয়রা। এসময় নির্যাতনের শিকার গৃহবধূকে নানা অপবাদ নিয়ে মারধর করে শ্বশুর বাড়ির লোকজন। এমনকি ধর্ষণকারী ও গৃহবধূকে পাশাপাশি বসিয়ে অশ্লীল ভিডিও ধারণ ও ছবি তুলে ফেসবুকে ছড়িয়ে দেয় স্থানীয়রা। ঘটনার পরপরই গৃহবধূকে তাঁর বাবার বাড়িতে পাঠিয়ে দেয় শ্বশুর বাড়ির লোকজন।
গৃহবধূর অভিযোগ, তাঁর স্বামী ঢাকায় চাকরি করেন। শাশুড়িও ঘটনার সময় বাড়িতে ছিলেন না। ধর্ষণের ঘটনা শুনে তারা আমার সঙ্গে সম্পর্ক বিচ্ছেদ করার ঘোষণা দিয়েছেন। শ্বশুর বাড়ির লোকজন আমাকে বাড়ি থেকে নামিয়ে দিয়েছে। আমি নির্যাতিত হলাম আবার তাদের মারও খেলাম, এখন আমাকে বাড়িতেও রাখবে না। আমি কোথায় যাবো। আমার স্বামী বলেছে, ‘তুই ধর্ষণের শিকার হইছ, তোকে আর রাখা যাবে না; তালাক দিয়ে দিবো।’
নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ঘটনাস্থলে উপস্থিত কয়েকজন জানান, ওই গৃহবধূর দুটি সন্তান রয়েছে। রাতে ধর্ষণকারীকে আটক করার পরে গৃহবধূকেও মারধর করা হয়। তাদের দুজনকে এক সঙ্গে বসিয়ে গলায় হাত দিয়ে ভিডিও ও ছবি তোলা হয়। এগুলো যারা ফেসবুকে ছড়িয়েছে, তাদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া উচিত।
গৃহবধূকে নির্যাতনকারী প্রতিবেশী মো. বাবুল বলেন, অপরাধ করেছে উভয়, তাই মারধর করা হয়েছে। মারধর করবো না-তো ছেড়ে দেব?
ঢাকায় এসিআই কম্পানিতে চাকরিরত গৃহবধূর স্বামী বলেন, আমি খবর পেয়ে ঢাকা থেকে বাড়িতে এসেছি। আমাদের পারিবারিক সিদ্ধান্ত অনুযায়ী আপাতত আমার স্ত্রীকে রাখা সম্ভব নয়। পরবর্তীতে কি করা হবে, তা এখন বলা যাচ্ছে না।
নলছিটি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবদুল হালিম তালুকদার জানান, ধর্ষণের ঘটনায় মামলা করেছে ওই গৃহবধূ। আসামি গ্রেপ্তার হয়েছে। ওই গৃহবধূকে মারধর, ছবি ফেসবুকে ছড়িয়ে দেওয়া ও তাকে বাবার বাড়িতে পাঠিয়ে দেওয়ার কথা শুনেছি। এ ব্যাপারে অভিযোগ পেলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন
সর্বস্বত্ত্ব © দৈনিক শতকন্ঠ - ২০২১ কর্তৃক সংরক্ষিত।
Theme Customized By BreakingNews