1. admin@dainikshatakantha.com : dainikshatakantha :
বুধবার, ২৮ জুলাই ২০২১, ১১:১৩ অপরাহ্ন

ছাত্রীকে বিয়ে করে যৌতুক দাবির মামলায় শিক্ষকের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা

  • প্রকাশিত : সোমবার, ১৪ সেপ্টেম্বর, ২০২০
  • ১৭২ বার পড়া হয়েছে
গণিত বিভাগের প্রভাষক
ঝালকাঠি সরকারি মহিলা কলেজের গণিত বিভাগের প্রভাষক মো. আল-আমিন মাঝি।

স্টাফ রিপোর্টার
ঝালকাঠি সরকারি মহিলা কলেজের গণিত বিভাগের প্রভাষক মো. আল-আমিন মাঝির বিরুদ্ধে ছাত্রীকে বিয়ে করে ৫ লাখ টাকা যৌতুক দাবির অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় ওই ছাত্রী বাদী হয়ে রবিবার দুপুরে ঝালকাঠির আদালতে মামলা করলে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করা হয়। ঝালকাঠির জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম আদালতের বিচারক এ ইচ এম ইমরানুর রহমান এ আদেশ দেন। অভিযুক্ত আল-অমিন মাঝি নলছিটি উপজেলার রানাপাশা গ্রামের মো. তৈয়বুর রহমান মাঝির ছেলে। তিনি ৪ বছর আগে ঝালকাঠি মহিলা কলেজে প্রভাষক পদে যোগদেন।
মামলার বিবরণে জানা যায়, ঝালকাঠি সরকারি মহিলা কলেজ থেকে ২০১৮ সালে এইচএসসি পাস করার পরে ওই ছাত্রীকে প্রেমের ফাঁদে ফেলে বিয়ে করে প্রভাষক আল আমিন। বিয়ের এক বছর যেতে না যেতেই ওই ছাত্রীকে ও তাঁর পরিবারকে ৫ লাখ টাকা যৌতুকের জন্য চাপ প্রয়োগ শুরু করেন। গত ২৭ মার্চ ছাত্রীকে তার বাবার বাড়িতে পাঠিয়ে দেওয়া হয়। ছাত্রীর মা ও আত্মীয় স্বজন আল-আমিনকে বাড়িতে এনে গত ৪ সেপ্টেম্বের যৌতুকের দাবি পরিহার করে ঘর সংসার করার অনুরোধ জানায়। আল-আমিন মাঝি পাঁচ লাখ টাকা যৌতুক না দিলে বাবার বাড়ি থেকে আর তার স্ত্রীকে ফিরিয়ে নেওয়া হবে না বলে জানিয়ে দেন।
বাদীর আইনজীবী আক্কাস সিকদার জানান, আদালত যৌতুক নিরোধ আইনের ৩ ধারায় অভিযোগ আমলে নিয়ে আসামির বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করেন।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন
সর্বস্বত্ত্ব © দৈনিক শতকন্ঠ - ২০২১ কর্তৃক সংরক্ষিত।
Theme Customized By BreakingNews